ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
সর্বশেষ:

এনএনবিডি, ঢাকা:

২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৭:০২

চকবাজারে আগুনের পর কর্তৃপক্ষ যা বললেন

11043_authority.jpg
পুরান ঢাকার চকবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৭০ জন মারা গেছেন। অগ্নিদগ্ধ হয়েছেন অর্ধ শতাধিক। ঘটনার পর সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের কর্তা ব্যক্তি ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। সেখানে তাঁরা কথা বলেছেন। হাসপাতালে আহতদের দেখতে গেছেন অনেকে। সেখানেও গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন মন্ত্রী, বিভিন্ন দপ্তরের প্রধান ও দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা। আবার কোনো কোনো দপ্তর এই ঘটনায় তাদের উদ্যোগের কথা সংবাদ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানিয়েছেন।

শ্রম মন্ত্রণালয়: শ্রম মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আগুনে পুড়ে মারা যাওয়াদের মধ্যে যারা শ্রমিক তাদের প্রত্যেকের পরিবারকে এক লাখ টাকা সহায়তা দেওয়া হবে। আর আহতদের দেওয়া হবে ৫০ হাজার টাকা করে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়: মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এই মন্ত্রণালয় তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। কমিটি সাত দিনের মধ্যে রিপোর্ট দেবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রসচিব।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়: মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী জাহিদ মালেক আহতদের সেবা দেওয়ার জন্য হাসপাতালগুলোতে নির্দেশ দিয়েছেন।

পুলিশ অধিদপ্তর: পুলিশ মহাপরিদর্শক জাবেদ পাটোয়ারী বলেছেন, পুরান ঢাকা থেকে রাসায়নিক পদার্থের গোডাউন সরানো দরকার। এখনই সময়। তিনি বলেন, এ ব্যাপারে সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তর সিদ্ধান্ত নিলে পুলিশ সব ধরনের সহায়তা দেওয়ার জন্য প্রস্তুত আছে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন: মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন বলেছেন, পুরান ঢাকা থেকে রাসায়নিক গুদাম সরাতে তাঁরা দৃঢ় অঙ্গীকারবদ্ধ। এখন তাঁরা জোর পদক্ষেপ নেবেন।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের আজ সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। তিনি বলেন, আজকের এই ঘটনায় তাঁরা আবারও শিক্ষা পেয়েছেন। আর যেন এমন ঘটনা না ঘটে সে জন্য এখন ব্যবস্থা নেবেন।

বিস্ফোরক অধিদপ্তর: অধিদপ্তর বলছে, রাজ্জাক ভবনে রাসায়নিক পদার্থের অবৈধ মজুত ছিল।