ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

১৩ এপ্রিল ২০১৯, ১২:০৪

একসঙ্গে ৭ সন্তানের জন্ম দিলেন এক নারী, অত:পর.....

11270_402742_143.jpg
লক্ষ্মীপুরে এক নারী সাত সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। জন্মের কিছু সময়ের মধ্যে প্রথমে একে একে পাঁচ শিশুর মৃত্যু হয়। পরে রাতেই বাকি দুই শিশুরও মৃত্যু হয়। এর আগে শহরের সিটি হাসপাতালে স্বাভাবিকভাবে সাত সন্তানের জন্ম দেন নাজমা আক্তার (১৮)।

নাজমা আক্তার লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার লাহারকান্দি ইউনিয়নের পাটোয়ারী বাড়ির প্রবাসী মো. রাজুর স্ত্রী। সাত সন্তানের মধ্যে চারটি মেয়ে ও তিনটি ছেলে ছিল। শুক্রবার রাত ৯ টা ৪৫ মিনিটে ওই সাত সন্তানের জন্ম হয়।

একসঙ্গে সাত নবজাতকের জন্ম দেয়ার খবর শহরে ছড়িয়ে পড়লে রাতেই স্থানীয় জনতা একনজর শিশু গুলোকে দেখার জন্য হাসপাতালটিতে ভিড় করতে থাকেন। সবার মধ্যেই ছিল অন্যরকম এক উৎসাহ। কিন্তু সবাইকে হতাশ করে না ফেরার দেশে চলে যায় সাত নবজাতকই।

সিটি হাসপাতালের ম্যানেজার ওমর ফারুক সাত সন্তানের জন্ম ও মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, রাত ৯টা ২০ মিনিটে প্রসব বেদনা নিয়ে নাজমা আক্তার হাসপাতালে ভর্তি হয়। ২মিনিট পর স্বাভাবিকভাবে সাত সন্তানের জন্ম দেন ওই প্রসূতি। মা নাজমা আক্তার সুস্থ থাকলেও সাত সন্তান জন্মের পর থেকে অসুস্থ অবস্থায় ছিল। জন্মের কিছুক্ষণ পর সাত সন্তানের মধ্যে পাঁচজন মারা যায়। বাকি দুজনও রাতেই হাসপাতালে মারা যায়।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, নিদিষ্ট সময়ের আগে (মাত্র ৫ মাসে) সন্তান প্রসব হাওয়া সাত সন্তান অসুস্থ অবস্থায় জন্মগ্রহণ করে। তাদের চোখও ফোটেনি। জন্মের পর থেকেই তাদের অবস্থা আশঙ্কাজনক ছিল।

লক্ষ্মীপুর সিটি হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. মো. আবদুল্লাহ নওশের জানান, নিদিষ্ট সময়ের পূর্বে সাত সন্তানের জন্ম হয়েছে। শিশুদের সুস্থ করতে চেষ্টা করেছি। কিন্তু তাদের সবার অবস্থা আশঙ্কাজনক থাকায় কাউকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।