ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
সর্বশেষ:

এনএন বিডি, ঢাকা

৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৩:১২

নিখোঁজ হওয়া রবিউলের সন্ধানে প্রধানমন্ত্রীর সাহায্য চাইলেন তার স্ত্রী

9223_khadiza.jpg
সুপ্রিয় সাংবাদিক ভাইয়েরা, আস্সালামু আলাইকুম। আমি মোসাঃ খাদিজা আক্তার (২৪), আমার সাথে রয়েছেন আমার শশুর ও শাশুড়ি। আপনাদের সামনে আমাদের পরিবারের পক্ষ থেকে বিস্তারিত বক্তব্য তুলে ধরছি, আমার স্বামী মোঃ রবিউল আউয়াল (২৫) একজন অনলাইন এক্টিভিস্ট। মূলত তিনি লেখালেখির সাথে জড়িত ছিলেন। আমাদের জানামতে তিনি রাষ্ট্র বা সমাজ বিরোধী কোনো কাজের সাথে কখনোই জড়িত ছিলেন না।

গত নভেম্বর মাসের ২৬ তারিখ দিবাগত রাতে আমাদের বাসার ক্যাবল অপারেটর আমার স্বামী মোঃ রবিউল আউয়াল সোহাগকে (২৫) ফোন দিয়েছিলেন। পরক্ষণে আমার স্বামীকেসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর লোকজন রাত আনুমানিক ১১ তার দিকে বাসায় আসেন ,তারপর আমার স্বামীকে আমাদের বাসার নিচে রেখে আমাদের ফ্ল্যাটে ডিবি পরিচয় দিয়ে বাসা থেকে ল্যাপটপ, কম্পিউটারসহ অনলাইন সংক্রান্ত অন্যান্য দরকারি জিনিসপত্র নিয়ে যান।

এরপর আমরা আমাদের নিকটবর্তী থানায় গিয়ে সাধারণ ডায়েরি করি, ডায়েরি নাম্বার হলো- ১৮০০। যাহার অনুলিপি আপনাদেরকে সরবরাহ করা হলো, তারপর আমরা সদর দক্ষিণ মডেল থানা, কুমিল্লায় যোগাযোগ করতে থাকি। আমাদেরকে মৌখিকভাবে বলা হয়েছিল ৫ তারিখ এর মধ্যে একটা খবর পাওয়া যাবে। এর মধ্যে গতকাল কেও আমরা ডিবি অফিস ও র‌্যাব অফিস এ খবর নেই। কিন্তু তারা বলেন এরকম কোনো লোককে আনা হয়নি। এমতাবস্থায় আপনাদের নিকট আমাদের আকুল আবেদন, দয়া করে আমার স্বামীকে ফিরে পেতে আপনারা সাহায্য করুন। আমি সকল মানবাধিকার সংগঠনসহ সকল অনলাইন, প্রিন্ট মিডিয়া ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া কর্মীদের সহযোগিতা কামনা করছি। 

আমার জানামতে আমার স্বামী কোনপ্রকার রাষ্ট্রবিরোধী কর্মকান্ড বা কোন অপরাধচক্রের সাথে জড়িত নন। প্রকাশ্য দিবালোকে একজন মানুষকে এভাবে তুলে নিয়ে আবার অস্বীকার করা মানবাধিকার ও আইনের শাসন পরিপন্থী বলে আমি মনে করি। অবিলম্বে তার সন্ধান সহ নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করছি। 

আমার স্বামী আমাদের পুরো পরিবারের একমাত্র আয়ের উৎস ছিলেন, আমার একমাত্র শিশুসন্তানের (০২) বাবা। আমার স্বামী যদি আমাদের অজান্তে কোন প্রকার অপরাধ করেও থাকে তাহলে আইন মোতাবেক আদালতে হাজির করে বিচার করা হোক। একজন নাগরিককে ২৪ ঘন্টার মধ্যে আদালতে হাজির করা এটা সাংবিধানিক নিয়ম। 

আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্টমন্ত্রী, র‌্যাব, পুলিশসহ সকলের নিকট আকুল আবেদন করছি, দয়া করে আমার স্বামীকে ফেরত পেতে সাহায্য করুন। 

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন রবিউল আউয়ালের বাবা শফিকুল ইসলাম, মা মরিয়ম বেগম, ভগ্নিপতি মাসুম, শ্যালক ইমদাদুল ইসলাম।